বাংলাদেশের ও লোককবি লোকসাহিত্য/BANGLADESHER LOKAKOBI O LOKASHITTA

পূর্বলেখ

একসময় আমার অভিলাষ জন্মেছিল, বাংলাদেশের লােককবিদের নিয়ে গ্রন্থ প্রভৃতি প্রকাশ করবাে। বাঙলাদেশের লােককবি ও লােকসাহিত্য (প্রথম খণ্ড)’ আমার সেই অভিলাষেরই ফসল । এখানে নয় জন লােককবির রচনা ও তাদের সম্পর্কে আলােচনা যতটুকু সম্ভব অন্তর্ভুক্ত করেছি। এই নয় জন লােককবি হলেন আলী রজা ওরফে কানুফকির (১৭৫৯-১৮৩৭; চট্টগ্রাম), সরকার মণীন্দ্র দাস (১৯০০-২০০০; চট্টগ্রাম), সেকান্দর গাইন (১৮৬০-১৯৪২; চট্টগ্রাম), খায়েরজ্জমা পণ্ডিত (১৮৭৬-১৯৫১; চট্টগ্রাম), শাহ আবদুল করিম (১৯১৬-; সুনামগঞ্জ), মােয়াজ্জম (উনিশ শতকে জন্ম ও মৃত্যু; সম্ভবত উত্তরবঙ্গের লােককবি), মুন্সী আমিন শরীফ (১৮৯৮-১৯৬৬; চট্টগ্রাম), মােহাম্মদ সাইদ মিয়া (১৮৮৯-১৯৬৬; বরিশাল) ও আস্কর আলী পণ্ডিত (১৮৪৬-১৯২৭; চট্টগ্রাম)। আলী রজা ওরফে কানুফকির ও শাহ আবদুল করিম ব্যতিত বাকি সকলেই বিলুপ্ত লােককবি । কারণ তাঁদের রচনা কালের অতল গহ্বরে অন্তর্হিত হয়ে গেছে। এখানে তাঁদের সম্পর্কে অন্তর্ভুক্ত আলােচনায় প্রদত্ত প্রচুর তথ্য, এছাড়া এখানে অন্তর্ভুক্ত তাঁদের রচনা Field work-এর মাধ্যমেই আমি উদ্ধার করেছি। আলী রজা ওরফে কানুফকিরকেও বিলুপ্ত লােককবি বলা চলে। কারণ, মুন্সী আবদুল করিম সাহিত্যবিশারদ ও ড. আহমদ শরীফ তার একাধিক পুথি সম্পাদনা ও প্রকাশ করে আঠার শতকের কবি হিসেবে তাঁর স্বীকৃতি আনলেও, তিনি ব্যাপক পরিচিতি পাননি। তাঁর সম্পর্কে বিস্তারিত আলােচনাও হয়নি। তার সম্পর্কে এখানে অন্তর্ভুক্ত আলােচনাটিকে বিস্তারিত আলােচনা বলা যেতে পারে । Field work-এর মাধ্যমে উদ্ধারকৃত তথ্য ও গানের আলােকে আলােচনাটি প্রস্তুত করেছি। শাহ আবদুল করিম বিলুপ্ত লােককবিও নন এবং অল্প পরিচিতও নন। তিনি এখনও জীবিত এবং অনেকগুলাে জনপ্রিয় গান রচনা করার কারণে ব্যাপক জনপ্রিয় । কিন্তু তাঁর ও তাঁর গান সম্পর্কে এখনও উল্লেখযােগ্য কোন আলােচনা হয়নি। এটা ঠিক যে, পত্র-পত্রিকায় তাকে নিয়ে ফিচার, সংবাদ, ছােট-খাট নিবন্ধ অনেক প্রকাশিত হয়েছে। অনেকটা এ কারণে শাহ আবদুল করিমের উপর একটি বড় আলােচনা (২২টি গানসহ) এখানে অন্তর্ভুক্ত করেছি। আলােচনাটি প্রস্তুত করতে আমাকে তথ্য-গান প্রভৃতি প্রদান করে সহযােগিতা করেছেন শাহ আবদুল করিম, তাঁর পুত্র শাহ নূর জালাল (বিএ) এবং মৌলভীবাজার জেলানিবাসী ও স্বনামধন্য গবেষক মাহফুজুর রহমান। আমার প্রত্যাশা ও বিশ্বাস, বাঙলাদেশের লােককবি ও লােকসাহিত্য (প্রথম খণ্ড) বাংলাদেশের বােদ্ধা পাঠক বা গবেষক সমাজ যথােপযুক্ত মূল্যায়ন করবেন। পরিশেষে এ গ্রন্থ প্রকাশে যারা আমাকে অকৃপণ সহযােগিতা প্রদান করেছেন, যেমন চট্টলচিত্র’র প্রধান সম্পাদক জামাল উদ্দিন, কবি শরীফা বুলবুল ও আমার স্ত্রী শাহীন নূপুর – তাদের প্রতি আন্তরিক কৃতজ্ঞতা পােষণ করছি।

১ ফেব্রুয়ারি ২০০৭

শামসুল আরেফীন

৳ 150

About The Author

শামসুল আরেফীন

শামসুল আরেফীন

নেশা লেখালেখি হলেও পেশায় তিনি একজন সরকারি কর্মকর্তা । ১৯৭৬ সালে বেতার উপস্থাপক হিসাবে তাঁর কর্মজীবনের শুরু এবং ১৯৭৯ সালে সিনিয়র প্রযোজক পদে বাংলাদেশ বেতার চট্টগ্রাম কেন্দ্রে যোগদান করেন।
ছোট কাগজে, স্থানীয় ও জাতীয় দৈনিকের সাহিত্যপাতায় শামসুল আরেফীন দীর্ঘকাল ধরে কখনো প্রকৃত নামে, কখনো আরণ্য আরিফ ছদ্মনামে কবিতা লিখে সুনাম কুড়িয়েছেন। রুবাই রচনা শুরু শুণ্যের প্রথমে। প্রচুর রচনা করেছেন। “রুবাইত-ই-আরেফীন” –এ রুবাই সংখ্যা ২৫৯।
আরেফীনের জন্ম চট্টগ্রাম জেলার চন্দনাইশ উপজেলার সদর এয়াকায় পিতা মাতা যথাক্রমে আবদুল মোবিন ও তমনারা বেগম। “রুবাইত-ই-আরেফীন” – এর পূর্বে আরেফীনের রচনা সম্পাদনায় ৮টি গ্রন্থ প্রকাশিতঃ আহমদ শফার ন্দুর মহল, গাঙ্গেয় বদ্বীপের অনন্য সঙ্গীতজ্ঞঃস্বপন কুমার দাশ, আস্কর আলী প্নডিতঃ একটি বিলুপ্ত অধ্যায়, বাংলাদেশের লোককবি ও লোকসাহিত্য প্রথম খন্ড, বাংলাদেশের লোককবি ও লোকসাহিত্য ২য় খন্ড-৪র্থ খন্ড, আস্কর আলী পন্ডিতের দুর্লভ পুথি জ্ঞান চৌতিসা ও পঞ্চসতী প্যারজান।

Reviews

There are no reviews yet.

Be the first to review “বাংলাদেশের ও লোককবি লোকসাহিত্য/BANGLADESHER LOKAKOBI O LOKASHITTA”

Your email address will not be published. Required fields are marked *